একি আল্লার কৃপা নয়? – কাজী নজরুল ইসলাম

একি আল্লার কৃপা নয়?

 ​​ ​​ ​​​​ একি তাঁর সাহায্য নয়?

 ​​ ​​ ​​​​ যেথা ছিল শুধু পরাজয় ভয়,

 ​​ ​​ ​​​​ সেখানে পাইলে জয়!

রক্তের স্রোত বহাতে যাহারা এসেছিল এই দেশে,

ধরেছে তাদের টুঁটি টিপে আজ তাঁর অভিশাপ এসে!

আল্লার আশ্রয় চেয়ে,​​ আল্লার শক্তিতে আজ

তোমরা পেয়েছ আশ্রয় আর তারা পাইতেছে লাজ।

লোভ আর ভোগ চাহে যারা,​​ নাই তাদের ধর্ম জাতি,

তাদের শুধু এক নাম আছে,​​ রাক্ষস বলে খ্যাতি!

হউক হিন্দু,​​ হউক ক্রিশ্চান,​​ হোক সে মুসলমান,

ক্ষমা নাই তার,​​ যে আনে তাঁহার দুনিয়ায় অকল্যাণ!

জুলুম যে করে শক্তি পাইয়া,​​ দানব সে,​​ সে অসুর,

আল্লার মার পড়ে তারে করে দুনিয়া হইতে দূর।

তাহাদেরই তরে দোজখে নরকে ভীষণ অগ্নি জ্বলে,

দলিছে যাহারা তাঁহার সৃষ্টি মানুষেরে পদতলে!

সকল জাতির সব মানুষের এক আল্লাহ্‌ সেই,

তাঁর সৃষ্টির বিচার করার কারও অধিকার নেই!

আমরা নিত্য চেষ্টা করিব চলিতে তাঁহারই পথে,

করিব না ভয়,​​ আসুক আঘাত শত শত দিক হতে!

 ​​​​ 

নির্যাতিতের আল্লাহ্‌ তিনি,​​ কোনো জাতি নাই তাঁর,

যুগে যুগে মারে উৎপীড়কেরে তাঁহার প্রবল মার।

তাঁর সৃষ্টিরে ভালোবাসে যারা,​​ তারাই মুসলমান,

মুসলিম সেই,​​ যে মানে এক সে আল্লার ফরমান।

 ​​ ​​ ​​​​ দূর করো লোভ,​​ ক্ষুদ্র অহংকার,

ফেলিয়া দিয়ো না,​​ পাইয়াছ হাতে আল্লার তলোয়ার!

দূর করে দাও সন্দেহ,​​ দুর্বলের অবিশ্বাস,

সমুখে জাগুক পরম সত্য আল্লার উল্লাস!

খানিক পেয়েছ,​​ খানিক পাওনি,​​ দেরি নাই​​ ,​​ তাও পাবে,

তাঁর জ্যোতি চির-অভয়ের পথে নিত্য লইয়া যাবে!

চারিদিক হতে ঘিরিয়া আসিছে হেরো অগ্নির ঢেউ,

যারা তাঁর পথে রহিবে,​​ তাঁদের মারিবে না কভু কেউ!

শুধু তাহারাই রক্ষা পাইবে! সাবধান! সাবধান!

মহাযুদ্ধের রূপে আসিয়াছে তাঁর শেষ ফরমান!

তাঁর শক্তিতে জয়ী হবে,​​ লয়ে আল্লার নাম,​​ জাগো!

ঘুমায়ো না আর,​​ যতটুকু পার শুধু তাঁর কাজে লাগো!

অন্তরে তব উঠুক ঝলসি আল্লার তলোয়ার,

ভিতরের ভয় ঘুচিলে আসিবে এই হাতে আরবার!

কোনো ব্যক্তির করিয়ো না পূজা,​​ এক তাঁর পূজা করো,

রাজনীতি নয় মুক্তির পথ,​​ এক তাঁর পথ ধরো!

মানুষের লোভ বাড়ায়ে দিয়ো না,​​ তার জয়ধ্বনি করে,

মানুষেরে ত্রাতা ভাবিলে অমনি আল্লাহ্‌ যান সরে!

তিনিই সর্বকল্যাণদাতা,​​ সর্ববিপদত্রাতা,

তিনি দিশা দেন সহজ পথের,​​ তিনিই সর্বজ্ঞতা!

 ​​​​ 

 ​​ ​​ ​​​​ তাঁর দেওয়া কৃপা-শক্তির চেয়ে,​​ ভাই,

মানবের জ্ঞানে দানব মারার কোনো সে শক্তি নাই।

চুক্তিতে আর যুক্তিতে কভু মানুষ বদ্ধ হয়?

তিনি প্রেম দিলে ত্রিভুবন হয় সাম্য শান্তিময়!

আমি বুঝি নাকো কোনো সে ‘ইজম’ কোনোরূপ রাজনীতি,

আমি শুধু জানি,​​ আমি শুধু মানি,​​ এক আল্লার প্রীতি!

ভেদ-বিভেদের কথা বলে যারা,​​ তারা শয়তানি চেলা,

আর বেশি দিন নাই,​​ শেষ হয়ে এসেছে তাদের খেলা!

থাকি কি না থাকি এই দুনিয়ায়,​​ তোমরা থাকিয়া দেখো,

সেদিন সিজদা করো আল্লারে,​​ কাঁদিয়া তাঁহারে ডেকো!

সেদিন সত্য হয় যদি তাঁর এই বান্দার কথা,

ঘুচে যাবে মোর চিরজনমের সকল দুঃখ-ব্যথা।

মানুষ আবার তাঁর প্রেমে নেয়ে চিরপবিত্র হোক!

জিনের দুনিয়া লভুক আবার জান্নাতের আলোক!

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।