সুখে আছি- রফিক উদ্দিন লস্কর

0
49

নদীর ধারে কাঁশফুল আর মস্ত হিজল গাছ,
গভীর জলে সাঁতার কাটে কতরকম মাছ।
একপাড়েতে ছোট্ট পাড়া নানা জাতীর বাস,
আত্মীয়তায় শিকড় গেড়ে থাকে বারোমাস।
জোয়ার ভাটা উঠলে পরে পাল্টে নদীর রূপ
নেই প্রতিবাদ নেই ঝামেলা এক্কেবারেই চুপ।
গাঙচিল ও মাছরাঙা পাখি উড়াউড়ি করে,
দেখলে পরে সুযোগ বুঝে শক্ত করে ধরে।
ব্যাধের ছেলে দেখলে তারে বিদ্ধ করে বাণে,
আসা যাওয়া চলে শুধু নদীর ঘাটের টানে।
সকাল দুপুর আনাগোনা অন্যপাড়ে শহর,
পাল তুলে নৌকো চলে নেইকো প্রাণে ডর।
রাখাল ছেলে তরুতলে বাজায় মোহন বাঁশি
কলসি কাঁখে বালা চলে মুখভরা তার হাসি।
চাষা চলে ক্ষেতের মাঠে সূর্য ওঠার আগে,
পাখির গানে ফুলের বাসে মনে খুশি লাগে।
———————————————————
নিতাইনগর, হাইলাকান্দি (আসাম-ভারত)

রফিক উদ্দিন লস্কর
আমি রফিক উদ্দিন লস্কর। জন্ম ০১/০২/১৯৮০ ইংরাজিতে ভারতের আসাম রাজ্যের হাইলাকান্দি শহরের নিতাইনগর গ্রামে। পিতা মৃত আলী রাজা লস্কর, মাতা মৃত হায়াতুন নেছা লস্কর। পেশা শিক্ষকতা।