মৃত্তিকার স্বাদ- আহমেদ জুয়েল

0
2

আজও খুঁজে বেড়াচ্ছি আমার প্রাণ, আমার হারানো সেই সুর,
হৃদয়ের সঞ্চারিত সেই কবিতা।
যেগুলো ছেলেবেলা থেকে তিল তিল করে গড়ে উঠেছিল আমার হৃদয়ে।

আমি আধুনিক সভ্যতার পেছনে ছুটেছি,
শহরের নিয়ন বাতির জ্বলমলে আলোর দিকে হাত বাড়িয়েছি।
নিয়নবাতি আমাকে আলো দিতে পারেনি,
যে আলো কোন এক সাঁঝের বেলায় জোনাকিপোকা আমাকে দিয়েছিলো।

বর্ষার থৈ-থৈ জল, নির্মল দক্ষিণা হাওয়া, দূর থেকে ভেসে আসা মাঝির গান,
যাহার পানে ক্ষণে ক্ষণে ছুটে যায় আমার নীড়হারা প্রাণ।
আমি ঘুমোতে পারিনা, ঘুমের রাজ্যে ভেসে আসে নদীর কলতান।

এই শহরের প্রতিটি কংক্রিটের দেয়াল আমি ছোঁয়েছি , প্রতিটি বালুকণা আমি স্পর্শ করেছি।
তবুও আমার মেঠোপথের কর্দমাক্ত মৃত্তিকার স্বাদ আমি পাইনি।
আমিতো কংক্রিট ভালোবাসতে আসিনি,
আমি এসেছি মৃত্তিকায় নিজেকে সমর্পণ করতে।
লাশ যেভাবে সমর্পিত হয় মৃত্তিকাগর্ভে,
ঠিক সেভাবে…।