কাগজ- কবি আল আমিন মুহাম্মাদ

0
53

হে কাগজ,
তুমি সরল, তুমি সোজা, তুমি সহজ।
পৃথিবীর কথাগুলো তোমার বুকে
মায়ের স্তন্যের মতো লালিত করে আমাদের,
আমরা আস্তে আস্তে বেড়ে উঠি
শিক্ষার রস, রুপ ,গঁন্ধে।
তোমার বক্ষের সাগরে ভেসে ‌ভেসে
কত সিন্দাবাদের বাণিজ্য সফল,
কত নদী মহাসাগরের সাথে প্রবেশিত।
তোমার সাদা আয়নায় প্রতিবিম্ব শান্তি
রক্তভেজা ময়দানের বদলে, প্রতিবিম্ব ন্যায়ের
পৃথিবীর সব অন্যায়ের বদলে।
দিন থেকে মহাকালের নিখূঁত সাক্ষীও তুমি।
পৃথিবীর সব মরু ঘুরে পর্যটক হই
আমার সাধ্য নেই,
আমি পর্যটক হয়েছি সবিশেষ তোমার।
প্রতিনিয়ত অগনিত মানুষের ব্যাস্ততা
তোমার আঙ্গিনায় বিভিন্ন তাগিদের
ভিড়ে আমি ক্ষুদ্র এক এই মহোৎসবে,
আমি সরল হতে চাই
আমি সোজা হতে চাই
আমি সহজ হতে চাই,
ইচ্ছে করে আমার
তোমার ধবধবে সাদা মনটা নি।
কাগজ, তুমি কত সরল, কত সহজ
কাজ শেষে তোমাকে ছিঁড়ে ফ্যালে ফেলুক
পথ চলতে পিষে ফ্যালে ফেলুক,নর্দমার
বিছানায় তোমাকে পঁচাক, তোমার কাজ
কি আশ্চর্য তুমি করে চলে যাও হরদম।
বিষয়টি আমাকে বেদারুন লজ্জা দিলেও
ক্ষুদ্র আমার কিছুই করার থাকেনা
হাত-পা দাপানো ছাড়া।
হে কাগজ,
আমার ইচ্ছা করে
তোমার ধবধবে সাদা মনটা নি।