আজকের চিত্রাঙ্গদা — যাহরিন নাজাহ জুম

0
167

এভাবেই কেটে যায় দিবস রজনী,
সেই কবে থেকে শুনছি;
‘সব কিছু ঠিক হয়ে যাবে।’
কই কিছুই তো ঠিক হয় না।
যাচ্ছে দিন, সীমাহীন প্রতীক্ষায়।
আশার স্বপ্ন বুনে বুনে,
রংচটা দেয়াল আর পুরাতন শরীরটাকে সাক্ষী রেখে।
আমি তো এখনো আছি আগেরই মতন,
সেইসব একই ভ্যালুস, একই এথিকস,
মূল্যবোধের কপচানি।
শুধু বদলে গেছে আমার শহরটা,
আমার আশেপাশের সো-কল্ড মডার্ মানুষ।
আমার সেই পুরানো ভালবাসাগুলোআজও আছে,
শুধু বদলে গেছে ভালবাসার মানুষগুলোই।
একটা কথাই জীবন আমায় শিখিয়েছে,
‘পৃথিবীতে বিশ্বাস বলে কিছু নেই,
নেই ভালবাসা; সবটাই মায়া,বৃথা ছলনা।’

আমার ভালবাসার আকাশটা আজো আছে,
শুধু গগলচুম্বী দালানের আড়ে বন্দী।

শৈশব গেল, কৈশোর ফুরোলো,
যৌবনও যাই যাই করছে।
আমি ভালবাসা পায় নি, বিশ্বাস কি জিসনস
আজো খুঁজে পাই নি।
আমার চারপাশটা ভীষণ অবিশ্বাসী,
ছলনাময়ীদের ভিড়ে বন্দী।
কারো চোখে তাকিয়ে আমি স্বপ্ন দেখিনি,
সবাই শুধু স্বপ্নই দখিয়েছে,
বোস্তব কেউ করে নি।
কেউ হয়ত ভালোই বাসে নি।

ভালবাসার কাঙাল ছিলাম আমি,
আজো হয়ত আছি,
ভালবাসাহীন মনটা ধূ ধূ সাহারা হয়ে গেছে;
এই বুঝি যা কালের ফসল।
সত্যি বলছি, আমি ভালবাসতে জানি,
কিন্তু কাকে বিলোব সেই অকূল দরিয়ার পানি,
সামলাতে পারবে কতা?
না অক্স্রিটোসিনের সাগরে ডুবতে গিয়ে
কোন শান্ত স্রোতস্বতীতে গিয়ে আশ্রয় খুঁজে নেবে।

বারবার পরাজিত হয়ে আমি েএ সত্যকে চিনেছি,
যে আপনার চেয়ে আপন , সে তো কেহ নয়।
না জননী, জনক, ভগিনী, ভ্রাতা।

এতটা জীবনভর শুধু
আশাই করে গেলাম,
এতটা কাল শুধু
স্বপ্নই দেখে গেলাম।
এতটা বসন্ত শুধু
প্রতীক্ষাতেই কাটালাম।
কবে আর হবে,
যা কিছু যাচনা বাসনা।
আমার এলোমেলো ভাবনা গুলো
আমায় করেছে প্রহসন।
‘তুমি নও কারো প্রেমিকা,
নও কারো ঘরণী,
তুমি যে শুধুই তুমি,
তুমিই একালের চিত্রাঙ্গদা।’

এতদিন পরে জানিলাম,
আমিই কলিযুগের চিত্রাঙ্গদা,
কিন্তু অর্জুন বলে কেউ নেই,
অন্তত আমার জীবনে ।

Zahrin Nazah Zoom
শখ করে কবিতা লেখা শুরু সেই ৮বছর বয়স থেকে। তার পর অদ্যাবধি চলছে কবিতা রচনা। জীবনের নানা দর্ন, সমাজচেতা, অব্যক্ত কথা পংক্তি হয়ে ওঠে তার রচনায়।