আজ  ​​​​ না-চাওয়া পথ দিয়ে কে এলে

​​ ওই  ​​​​ কংস-কারার দ্বার ঠেলে।

আজ  ​​​​ শব-শ্মশানে শিব নাচে ওই ফুল-ফুটানো পা ফেলে॥

 ​​​​ 

আজ  ​​​​ প্রেম-দ্বারকায় ডেকেছে বান

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ মরুভূমে জাগল তুফান,

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ দিগ্‌বিদিকে উপচে পড়ে প্রাণ রে!

তুমি  ​​​​ জীবন-দুলাল সব লালে-লাল করলে প্রাণের রং ঢেলে॥

 ​​​​ 

​​ ওই  ​​​​ শ্রাবস্তি-ঢল আসল নেমে

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ আজ ভারতের জেরুজালেমে​​ 

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ মুক্তি-পাগল এই প্রেমিকের প্রেমে রে‌!

ওরে  ​​​​ আজ নদীয়ার শ্যাম নিকুঞ্জে রক্ষ-অরি রাম খেলে॥

 ​​​​ 

ওই  ​​ ​​​​ চরকা-চাকায় ঘর্ঘরঘর

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ শুনি কাহার আসার খবর,

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ ঢেউ-দোলাতে দোলে সপ্ত সাগর রে!

ওই  ​​ ​​​​ পথের ধুলা ডেকেছে আজ সপ্ত কোটি প্রাণ মেলে।

 ​​​​ 

আজ  ​​​​ জাত-বিজাতের বিভেদ ঘুচি,

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ এক হল ভাই বামুন-মুচি,

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ প্রেম-গঙ্গায় সবাই হল শুচি রে!

আয়  ​​​​ এই যমুনায় ঝাঁপ দিবি কে বন্দেমাতরম বলে–

 ​​ ​​ ​​ ​​ ​​ ​​ ​​ ​​ ​​ ​​ ​​​​ ওরে  ​​ ​​​​ সব মায়ায় আগুন জ্বেলে॥

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।