ফিরে যা সখী ফিরে যা ঘরে – কাজী নজরুল ইসলাম

কীর্তন

ফিরে যা সখী ফিরে যা ঘরে
থাকিতে দে লো এ পথে পড়ে
যে পথ ধরে গিয়াছে হরি চলি।
আমি যাব না আর গোকুলে,
লোকনিন্দা মানব না সই
যাব না আর গোকুলে,
সখী শিশিরে আর ভয় কী করি ভেসেছি যবে অকূলে॥
সখী দিসনে লো দিসনে লো রাখ গোপী-চন্দন,
চন্দনে জুড়ায় না প্রাণের ক্রন্দন,
দ্বিগুণ বাড়ায় জ্বালা নব মালতী-মালা,
ও যে মালা নয়, মনে হয় সাপিনির বন্ধন॥
সখী যাহার লাগিয়া বসন ভূষণ, সেই গেল যদি চলে,
কী হবে এ ছার ভূষণের ভার ফেলে দে যমুনাজলে।
সকলের মায়া কাটায়েছি সখী, টুটিয়াছে সব বন্ধন,
যেতে দে আমায়, যথা মথুরায় বিহরে নন্দন॥
দেখব তারে, — আমি রাজার সাজে দেখব তারে
রাজার সাজে কেমন মানায় গো-রাখা রাখাল-রাজে।
আমার হৃদয়ের রাজা রাজ্য পেয়েছে
দেখিতে যাইব আমি,
যদি চিনিতে না পারে আসিব লো ফিরে
দুয়ারে ক্ষণেক থামি।
মোর রাজ-দর্শন পুণ্য হবে,
আমি তীর্থের ফল লভিয়া ফিরিব
দেখিয়া জীবনস্বামী॥

আরও পড়ুন

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।